1. admin@lalsabujerdesh.com : ডেস্ক :
  2. lalsabujerdeshbd@gmail.com : Sohel Ahamed : Sohel Ahamed
মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ০৯:৩০ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
বিএসএনপিএস কমিটি গঠন:সভাপতি আবু বকর সিদ্দিক সাঃ সম্পাদক শামছুল আলম,সহ সাঃ সম্পাদক ছাবির উদ্দিন রাজু গাজীপুর ভবানীপুর এলাকার শামীম টেক্সটাইল মিলে তুলার গুদামে আগুন ‘জলবায়ু পরিবর্তনে ৭১ লাখ বাংলাদেশি বাস্তুচ্যুত’- ডব্লিউএইচও ভৈরবে আলোচিত তানজিনা হত্যার বিচারের দাবীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ করেছে এলাকাবাসী বিএমএসএফ প্রতিষ্ঠাতার কণ্যা জেরিন এসএসসিতে গোল্ডেন জিপিএ লাভ বিএমএসএফ নিজস্ব গঠনতন্ত্রে পরিচালিত ট্রাস্টিনামা দলিলের অন্তর্ভুক্ত নয় -সাধারণ সভায় নেতৃবৃন্দ সামাজিক সংগঠন জাগ্রত সিক্সটিনের উপহার পেল পঙ্গু রহিম মিয়া অভিযাত্রিক সাহিত্য ও সংস্কৃতি সংসদ এর  ২২৬১ তম সাপ্তাহিক সাহিত্য আসর অনুষ্ঠিত রংপুরে কৃষকের মুখে হাসি ফুলকপির  ফলন ভালো  হওয়ায় যশোর সীমান্তে এক কিশোরের সাইকেলে পাওয়া গেল ১৫ পিচ স্বর্ণের বার

মিথ্যা ও ভিত্তিহীন প্রতিবেদন প্রচারের অভিযোগ এনে রসিক মেয়রের সংবাদ সম্মেলন

  • আপডেট টাইম : বুধবার, ২৬ আগস্ট, ২০২০
  • ৭৩ বার

 

রিয়াজুল হক সাগর, রংপুর জেলা প্রতিনিধিঃ
রংপুর সিটি কর্পোরেশনের উন্নয়ন বাধাগ্রস্থ করতে মিথ্যা ও ভিত্তিহীন প্রতিবেদন প্রচারের অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছে মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা।
বুধবার দুপুরে সিটি কর্পোরেশন মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলনে মেয়র লিখিত বক্তব্যে বলেন, গত ১৭ আগস্ট একটি বেসরকারী টেলিভিশনে ২ জনের বিপরীতে ১০ জন নিয়োগ ও ২১ আগস্ট বিগত মেয়রের আমলে নিয়োগ করা ১৭৭ জন কর্মচারী ছাটাইয়ের অভিযোগ তোলা হয়। যা স্বার্থান্বেষী মহলের ইন্ধনে রংপুর সিটি কর্পোরেশনের উন্নয়ন কার্যক্রম বাধাগ্রস্থ করতে একটি ষড়যন্ত্র। সিটি কর্পোরেশনে ২ জনের বিপরীতে ১০ জন নিয়োগের যে অভিযোগ তোলা হয়েছে ওই নিয়োগ এখনও প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। রংপুর সিটি কর্পোরেশনের বিশাল উন্নয়ন কর্মকান্ড পরিচালনা করতে ১ বছরের চুক্তির মাধ্যমে দৈনিক মজুরী ভিত্তিতে ১০ জন উপ-সহকারী প্রকৌশলী নিয়োগ দেয়া হয়েছে।
বিগত মেয়র সরফুদ্দিন আহমেদ ঝন্টুর আমলে নিয়োগ দেয়া ১৭৭ জন কর্মচারীদের মধ্যে নিয়োগ প্রক্রিয়া যথাযথভাবে না হওয়ায় তদন্ত কমিটির মাধ্যমে সেখান থেকে ১১৬ জনকে নেয়া হয়। অবশিষ্ট ১১ জন উপসহকারী প্রকৌশলীসহ মোট ৬১ জন হাইকোর্টে রিট দায়ের করেছে। যা বিচারাধীন। রংপুর নগরীর উন্নয়নের স্বার্থে সিটি পরিষদের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও কাউন্সিলরদের পরামর্শে সকল নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হয়েছে বলে জানান রসিক মেয়র।
মেয়র আরও বলেন, বিগত মেয়র রংপুর সিটি কর্পোরেশনের একটি জনবল কাঠামো মন্ত্রণালয়ে অনুমোদনের জন্য পাঠায়। যেখানে ৮৬২ জনের জনবল কাঠামো উল্লেখ আছে। কিন্তু দাখিলকৃত জনবল কাঠামো এখন পর্যন্ত চুড়ান্ত অনুমোদন হয়নি। ফলে সিটি কর্পোরেশনের প্রায় ৭২০ কোটি টাকার চলমান উন্নয়ন ও প্রায় ১০ লাখের অধিক নাগরিককে সেবা দিতে জরুরী ভিত্তিতে সাড়ে ৩’শ টাকা থেকে সর্বোচ্চ সাড়ে ৪’শ টাকা দৈনিক মজুরীতে কিছু সংখ্যক শ্রমিক নিয়োগ দিয়ে সিটি কর্পোরেশনের কর্মকান্ড পরিচালনা করা হচ্ছে।
তিনি রংপুর সিটি কর্পোরেশনের উন্নয়নে সর্বস্তরের মানুষের সহযোগিতা কামনা করে বলেন, ভবিষ্যতে কোন তথ্য বিকৃত না করে যথাযথ কর্মকান্ডের ফিরিস্তি তুলে ধরে যাতে সংবাদ পরিবেশন করা হয়। সে লক্ষ্যে সকল তথ্য-উপাত্ত দিতে আমি প্রস্তুত।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, রংপুর সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রুহুল আমিন মিঞা, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী এমদাদ হোসেন, প্যানেল মেয়র মাহমুদুর রহমান টিটু, কাউন্সিলর তৌহিদুল ইসলামসহ সিটি কর্পোরেশনের সকল কাউন্সিলররা।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..