1. admin@lalsabujerdesh.com : ডেস্ক :
  2. lalsabujerdeshbd@gmail.com : Sohel Ahamed : Sohel Ahamed
বুধবার, ০৫ অক্টোবর ২০২২, ০৩:১০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
চিকিৎসা শেষে দেশে ফিরলেন সিটি মেয়র রেজাউল করিম চৌধুরী ঢাকা-চট্রগ্রাম মহাসড়কের চৌদ্দগ্রাম পৌর অংশে ময়লার বাগাড়, শিশুদের স্থাস্থ্য ঝুঁকির আশংকা সর্বসাধারণের জন্য বিশুদ্ধ খাবার পানির সুব্যবস্থা এর উদ্বোধন করলো পুনাক বাগেরহাটের রামপালে  ৬১টি জিআই পাইপ ও ১টি লোহার বিম ও ৮০টি জিআই পাইপ ও ১টি ওয়াটার বাল্বসহ মোট ৭ লক্ষাধিক টাকার মালামাল জব্দ করেছে ৩ আনসার ব্যাটালিয়ন, রামপাল ক্যাম্প। বাঙালির মুক্তির জন্য বহু বিনিদ্র রজনী অতিবাহিত করেছেন বঙ্গবন্ধু : ড.কলিমউল্লাহ বাড়তি বৃষ্টিপাতে হতে পারে বন্যা, শঙ্কা আছে ঘূর্ণিঝড়ের ‘মুজিববর্ষে প্রায় ২ লাখ পরিবার সরকারি ঘর পেয়েছে’ – প্রধানমন্ত্রী জাতিসংঘে গণহত্যার স্বীকৃতির দাবিতে কাল রংপুর সেক্টর কমান্ডারস ফোরাম মুক্তিযুদ্ধ ৭১ এর মানববন্ধন রংপুরে মাসব্যাপী শিল্প ও বাণিজ্য মেলা শুরু নেত্রকোণা জেলার শ্রেষ্ঠ ইউএনও অফিসার রাজীব-উল-আহসান

বরিশালে বিএনপি’র বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত

  • আপডেট টাইম : শুক্রবার, ১৯ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৯৭ বার

 

আব্দুল্লাহ আল হাসিব, বরিশাল:
দেশব্যাপী নিরপেক্ষ নির্বাচনের দাবীতে ও জিয়াউর রহমানের রাষ্ট্রীয় খেতাব বাতিলের প্রতিবাদে কেন্দ্রঘোষিত বিএনপির বরিশাল বিভাগীয় সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) বেলা ২টায় বরিশাল জিলা স্কুল মাঠে এ সমাবেশ শুরু হয়। বরিশালে বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশে অংশ নেয় দেশের ৬ সিটি করপোরেশনে বিএনপি’র প্রার্থীরা। মহানগরীর বিভিন্ন ওয়ার্ড ছাড়াও বিভাগের ৬ জেলা থেকে নেতাকমীরা দলে দলে সমাবেশস্থলে অংশগ্রহণ করেন। যদিও পথে পথে তারা তাদের উপর ক্ষমতাসীনদের হামলা এবং পুলিশী হয়রানীর অভিযোগ করেন।

বরিশাল মহানগরের সাবেক মেয়র মজিবুর সারোয়ারের সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মেজর (অবঃ) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ।

সমাবেশে তরুণ ছাত্রদের উদ্দেশ্য করে মেজর (অবঃ) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ বলেন, স্লোগান দেওয়ার জন্য এখানে আসবেন না। স্লোগান দেওয়ার জন্য রাজপথ। স্লোগান দিয়ে আমাদের মিটিং নষ্ট করবেন না। আর যদি প্রতিরোধ করতে হয় তাহলে রাজপথে গিয়ে সন্ত্রাসী বাহিনীকে প্রতিরোধ করুন। আগুন জ্বালাতে হলে শেখ হাসিনার গদিতে আগুন জ্বালান। আমাদের মঞ্চে আগুন জ্বালাবেন না। মঞ্চে আগুন জ্বালানোর কোনো প্রয়োজন নাই।

মুক্তিযুদ্ধের প্রেক্ষপট তুলে ধরে তিনি বলেন, ভারতীয় বাহিনী না আসলেও আমরা এই দেশকে স্বাধীন করতে পারতাম। প্রতিবেশী রাষ্ট্র যখন দেখেছে বিজয় নিশ্চিত, মুক্তিবাহিনী বিজয়ের দারপ্রান্তে নিয়ে গেছে- তখন তারা কৃতিত্ব নেওয়ার জন্য শেষ দিকে এসে যোগদান করেছে। তাদেরকে ছাড়াও আমরা এই দেশকে স্বাধীন করতে পারতাম।

সমাবেশে ঢাকা দক্ষিণ সিটিতে বিএনপির মেয়র প্রার্থী প্রকৌশলী ইশরাক হোসেন বলেছেন, আমরা গণতন্ত্র পুনরাদ্ধের আন্দোলনে আছি। আমাদেরকে কোনো বাধা-ই আটকাতে পারবে না

আজকে সমাবেশে আসার জন্য ঢাকা থেকে রওনা দেওয়ার পর মাওয়া ঘাটে সরকার নির্লজ্জভাবে, ন্যাক্কারজনকভাবে ফেরি বন্ধ করে দেয়। কর্তৃপক্ষ অফিস বন্ধ করেই চলে যায়। আমাদের প্রায় ২৫টি গাড়ি এখনো সেখানে রয়ে গেছে।

নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে ইশরাক বলেন, আপনারা যেভাবে মাঠে আছেন, গত ১৩ বছর ধরে অত্যাচার, নির্যাতন, মামলা হামলার শিকার হয়ে যেভাবে মাঠে আছেন, আপনাদেরকে দেখে আমি আরো উজ্জীবিত হলাম। আপনারা আগামী আন্দোলন সংগ্রামের জন্য প্রস্তুতি নিন। ইনশাল্লাহ বরিশাল থেকেই সরকার পতনের আন্দোলন পাকাপোক্ত হবে।

সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা হাবিবুর রহমান হাবিব, সাংগঠনিক সম্পাদক বিলকিস জাহান শিরিন, খুলনা মহানগর সিটি করপোরেশনের বিএনপির মেয়রপ্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জু, চট্রগ্রাম মহানগর সিটি করপোরেশনের বিএনপির মেয়রপ্রার্থী ডা. শাহাদাত হোসেন, রাজশাহী মহানগর সিটি করপোরেশনের বিএনপির মেয়রপ্রার্থী মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল, বিএনপি নেতা আবুল হোসেন খান, ওবায়দুল আকরাম, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক আ ক ন কুদ্দুসুর রহমান, আক্তারুজ্জামান শামীম, এএইচএম তসলিম উদ্দিন সহ স্থানীয় নেতৃবৃন্দ।

উল্লেখ্য, নিরপেক্ষ নির্বাচনের দাবীতে সারা দেশের সব বিভাগীয় শহরে বিভাগীয় সমাবেশের ঘোষণা দেয় বিএনপি। যার প্রথমটি অনুষ্ঠিত হলো বরিশালে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..