1. admin@lalsabujerdesh.com : ডেস্ক :
  2. lalsabujerdeshbd@gmail.com : Sohel Ahamed : Sohel Ahamed
গফরগাঁও শিবগঞ্জ গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ থানায় মামলা স্বামী ও শ্বশুর দুই শিশু কে নিয়ে পলাতক । - লাল সবুজের দেশ
মঙ্গলবার, ১৮ মে ২০২১, ০৭:২১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
প্রাণ আরএফএল কোম্পানি ভেজাল পণ্য নির্মাণের অভিযোগ চুনারুঘাটে জমি সংক্রান্তের জের ধরে দুই পক্ষে সংঘর্ষে আহত অন্তঃ ১০ পবিপ্রবি’র ভাইস-চ্যান্সেলর হলেন প্রফেসর ড.স্বদেশ চন্দ্র সামন্ত কালিয়াকৈরে সড়ক দুর্ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত ভারতীয় ভ্যারিয়েন্টের করোনা প্রতিরোধে রংপুরে ক্যাম্পেইন শুরু চন্দনাইশে ১,৭০০ পিচ ইয়াবা ও পিকআপসহ আটক ২ আনোয়ারায় সড়ক দুর্ঘটনায় বাবা-মেয়ের মৃত্যু , মা আশঙ্কাজনক ভৈরবে প্রাণ ভয়ে বাড়ি ছাড়া পরিবারের সাংবাদিক সম্মেলন সিরাজ সরকারের মৃত্যুতে মাছিমপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যান কালা মিয়ার শোক পিরোজপুরে চেয়ারম্যান প্রার্থীর উপর হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ

গফরগাঁও শিবগঞ্জ গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ থানায় মামলা স্বামী ও শ্বশুর দুই শিশু কে নিয়ে পলাতক ।

  • আপডেট টাইম: বৃহস্পতিবার, ৮ এপ্রিল, ২০২১
  • ৫৭ বার পঠিত

 

মোঃ এনামুল হক স্টাফ রিপোর্টার

ময়মনসিংহ জেলা গফরগাঁও উপজেলা শিবগঞ্জ বিদাস উচ্চবিদ্যালয় স্কুলের পূর্ব পাসে ভাড়া বাড়িতে গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

৪ – ৩ – ২০২১ রবিবার যেকোনো সময় ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছেন এলাকা বাসি। এ বিষয়ে এলাকা বাসি থানায় যানালে পুলিশ এসে লাশ থানায় নিয়ে য়ায়।

মোঃ সবুর মুন্সি পিতা আবু সিদ্দিক গ্রামঃ ছয়আনি রসুলপুর ।

মোছাম্মদ আসমা আক্তার পিতা প্রবাসী আব্দুল বাতেন গ্রাম বীর বগুড়া ঢালী বাড়ি। সবুর মুন্সী ও তার স্ত্রী আসমা আক্তার দুজনের মধ্যে আনুমানিক ১০ বছর আগে ইসলামি শরীয়ত মোতাবেক বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয়।

সবুরের বিযের আগে থেকেই ছিলো সংসারে অনেক অভাব অনটুন ছিল খেয়ে না খেয়ে কাটত তাদের দিন আসমার বাবার বাড়ী ছিলো সচ্ছল।

তাই বিয়ের পর থেকেই আর্থিক সহযোগিতা করে যাচ্ছে তার বাবা বাতেন, আমার সহজ-সরল মেয়েটার মুখের দিকে তাকিয়ে মেয়ের সংসারের হাল ধরে আসছে প্রবাশি পিতা আব্দুল বাতেন।

আসমা বিয়ের কয়েক বছর পর ফোট ফোটে দুইটি কন্না সন্তান জন্ম দেন, বড় মেয়ে ছুমাইয়া আক্তার ( ৮) ছুট মেয়ে ছাওদা আক্তার ( ৩ ) দুই মেয়ের নিযমিত খরচ দিতেন তার নানা বাতেন মিয়া প্রবাসী।

সবুর কবিরাজ বিবাহ করে আনার পর থেকেই বিভিন্ন অজুহাত দেখিয়ে থেমে থেমে চালিয়ে যাচ্ছে ঝগড়া।

কিছুদিন পর স্বামী সবুর কবিরাজ আরেকটি বিবাহ করেছে ও অন্য মহিলা দেরকে নিয়ে চলা ফেরা করে এমন অভিযোগ করেছে মেয়ের মা।

সবুরের স্ত্রী আসমা আক্তারের মা বলেন আমার মেয়েকে সবসময় ব্যাপক মারপিট করতেন সবুর।

আসমার স্বামী বলেন তোর বাবার বাড়ি থেকে টাকা এনেদে আসমা স্বামীর মোখের দিকে তাকিয়ে ও তার সন্তানদের সুখের জন্য চিন্তা করে বাবার কাছথে দের লক্ষ টাকা এনে দিলেন।

টাকা আনার কিছুদিন পর ভালোই চলছে তাদের সংসার। লম্পট স্বামী, স্ত্রীর প্রতি ভালো বাসা কমিয়ে আবারো শুরু করলেন অমানুষিক নির্যাতন ।

আসমার কপালে প্রতিনিয়ত জুটতো লাঠি চার্জ, খাবারের মাযেও চলতো পিটুনি। আসমা কান্না করে বলতেন আমাকে তোমি আর মেরোনা আমার সকল কিছু তুমি।

আমি কারকাছে যাবো আপনি আমার সব কিছু আপনার পায়ের নিচে আমার বেহেস্ত, আমি আপনাকে ছেরে কোথাও যেতে পারবনা।

আমার স্বামীর বাড়িতে যেন আমার মৃত্যু হয়। আসমার মা, ভাই, জেঠো, চাচি সবুরের এলাকার লুকজন বলেন আসমার স্বামীর চরিত্র বেশি ভালো ছিলনা।

আসমা বলতেন একদি না একদিন আমার স্বামী আমাকে মেরেফেলবে তারপরেও মার খেয়েও সংসারে ছিলেন মেয়েটি।

আসমার মা বলেন আমার মেয়ের স্বামীর মার খেয়ে অনেক অসুস্থ হয়ে যাইতেন তারপরেও মেয়ে আমার স্বামীর বাড়ি ছেড়ে আস্তে চাইতোনা।

আমি এলাকার গন্য মান্য ব্যাক্তি বর্গ দের কে নিয়ে আমার মেয়েকে বাড়িতে নিয়ে আসি কয়েকবার।

আমার বাড়ি এনে চিকিৎসা করাতাম মেয়ের শ্বশুর তাকে অনেক বার মেরেছে জানাযায়।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved © 2020 lalsabujerdesh.com ।
Theme Customized By BreakingNews