1. admin@lalsabujerdesh.com : ডেস্ক :
  2. lalsabujerdeshbd@gmail.com : Sohel Ahamed : Sohel Ahamed
ভৈরবে প্রবাল হত্যা মামলায় প্রধান আসামি অন্তরের আদালতে আত্মসমর্পণ - লাল সবুজের দেশ
বুধবার, ২৩ জুন ২০২১, ০৭:৩৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
নরসিংদী চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির প্রেসিডেন্ট মোঃ আলী হোসেন শিশির (সি,আই,পি) কে সম্বর্ধনা সাংবাদিক হত্যাচেষ্টাকারীদের দ্রুত বিচারের মূখোমূখি করুন : বিএমএসএফ শ্রীপুরে মিজানুর রহমান খান মহিলা ডিগ্রী কলেজ’র পরবর্তি সভাপতি নিগার সুলতানা ঝুমা। নীলফামারী ডোমারে আনসার ও গ্রামপ্রতিরক্ষা বাহিনীর বৃক্ষরোপন কর্মসূচী পালিত । কেশবপুরে করোনা ভাইরাস সংক্রামন রোধে বুধবার থেকে সপ্তাহব্যাপী কঠোর লকডাউন সোনাগাজী উপজেলার সকল ইউনিয়ন ছাত্রলীগের (আংশিক) কমিটি ঘোষণা বরিশাল-ঢাকা নৌ-রুটে লঞ্চ চলাচল বন্ধ নতির কোলে চড়ে ভোট দিলেন বৃদ্ধা আলেমা রংপুর র‌্যাব-১৩, কর্তৃক মোবাইল চোর চক্রের সংঘবদ্ধ ৩ জন গ্রেফতার। মানিকগঞ্জে জননী সাহসিকা কবি সুফিয়া কামালের ১১০তম জন্ম বার্ষিকী উপলক্ষে International webinar অনুষ্ঠিত

ভৈরবে প্রবাল হত্যা মামলায় প্রধান আসামি অন্তরের আদালতে আত্মসমর্পণ

  • আপডেট টাইম: বৃহস্পতিবার, ১০ জুন, ২০২১
  • ৭০ বার পঠিত

 

এম আর ওয়াসিম, ভৈরব (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধিঃ
কিশোরগঞ্জের ভৈরবে ইউপি চেয়ারম্যানের ছেলে মহিউদ্দিন প্রবাল হত্যাকাণ্ডের ১০ দিন পর মামলার প্রধান আসামি অন্তর মিয়া (২৪) আদালতে আত্মসমর্পণ করেছেন। আজ ১০ জুন বৃহস্পতিবার দুপুরে কিশোরগঞ্জে জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কোর্ট ২ রফিকুল ইসলাম বারী এর আদালতে হাজির হয়ে অন্তর আত্মসমর্পণ করে। অন্তর মিয়া পৌর শহরের কমলপুর এলাকার জিল্লুর রহমানের ছেলে।

ঘটনা সূত্রে জানা যায় গত ৮জুন মঙ্গলবার সন্ধ্যায় অন্তরের বাবা জিল্লুর রহমানকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। জিল্লুর রহমান হত্যা মামলার ২ নম্বর আসামি। এর আগে ৪জুন শুক্রবার দূর্জয় মোড় এলাকা থেকে উক্ত মামলার ২ আসামী রাজন ও তৌহিদ কে গ্রেফতার করে র‍্যাব-১৪ ভৈরব ক্যাম্পের সদস্যরা। পরে এই হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত
থাকায় কমলপুরের আলী হোসেনের ছেলে সাকিব কে গ্রেফতার করে র‍্যাব। সাকিব এজাহার ভূক্ত আসামী ছিল না। কিন্তু পরে তাকে এজাহার ভুক্ত করা হয়েছে। এ নিয়ে হত্যা মামলায় মোট পাঁচজন গ্রেপ্তার হয়েছে। পাঁচজনের মধ্যে তিনজন র‍্যাবের হাতে, একজন পুলিশের কাছে এবং অন্তর আদালতে আত্মসমর্পণ করলেন।

উল্লখ্য যে নিহত প্রবাল নরসিংদীর জেলার রায়পুরা থানার মুছাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হোসেন ভূঁইয়ার ছেলে।
হোসেন ভূইয়া ভৈরব মাতৃকা হাসপাতাল ও বিল্ডিংয়ের মালিক। পরিবার পরিজন নিয়ে দীর্ঘ বছর ধরে ভৈরবেই তাদের বসবাস। গত ১জুন মঙ্গলবার রাত সাড়ে আটটার দিকে প্রবালে মরদেহ সরদার হোটেলের পিছনে শাকিল মটরস থেকে উদ্ধার করে পুলিশ।
এসময় কিশোরগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক্রাইম) নূরে আলম, পিবিআই ও ভৈরব থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ শাহিন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এই ঘটনায় ৩ জুন অন্তরকে প্রধান অভিযুক্ত করে ছয়জনের বিরুদ্ধে মামলা হয়।

এবিষয়ে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ভৈরব থানার পরিদর্শক (অপারেশন) তারিকুল আলম অন্তরের আত্মসমর্পণের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। তিনি আরো বলেন, ‘অন্তরকে গ্রেপ্তারের জন্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর বিভিন্ন বাহিনীর মাধ্যমে এমন ভাবে জাল বিছানো হয়েছিল যে সে আজকে বা কালকে নিশ্চিত ধরা পড়ত। তার লোকেশন সহ চিহ্নিত হয়ে গিয়েছিল। উপায়ান্তর না দেখে সে আজ বিজ্ঞ আদালতে আত্মসমর্পণ করেছে। অন্য এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ঘটনার মূল কারন এখনো জানা যায়নি। তবে প্রধান আসামী অন্তর যেহেতু আইনের আওতায় এসেছে, এখন মূল কারন জানা যাবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved © 2020 lalsabujerdesh.com ।
Theme Customized By BreakingNews