1. admin@lalsabujerdesh.com : ডেস্ক :
  2. lalsabujerdeshbd@gmail.com : Sohel Ahamed : Sohel Ahamed
এবার প্রকৌশলী রাজ্জাকের বিরুদ্ধে আরো একটি মামলা দায়ের- লাল সবুজের দেশ
রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০১:৪৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
রাউজান থানা পুলিশের অভিযানে ২২০ (দুইশত বিশ) বোতল ফেনসিডিল, ৩ কেজি ৬০০ গ্রাম গাঁজা ও পরিবহনে ব্যবহৃত ০১টি ট্রাকসহ গ্রেফতার ০৩জন টেকনাফ মডেল থানা পুলিশের অভিযানে ইয়াবা সহ একজন মাদক কারবারি গ্রেফতার। স্থানীয় শিক্ষক নেতৃবৃন্দের ইন্ধনে দুই সাংবাদিকের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি মামলা দায়ের-বিএমএসএফ বরিশালে মুখোমুখি সংঘর্ষে ৩ মোটর সাইকেল আরোহী নিহত আনোয়ারায় বিষধর সাপের কামড়ে মহিলা মেম্বারের মৃত্যু রূপগঞ্জে মাদকবিরোধী তরুণ প্রহরী দলের হাতে ১১ কেস বিয়ার আটক ডোমারে ‘উন্মুক্ত পাঠশালা’ উদ্বোধন মানিকগঞ্জে RAB-4 এর অভিযানে একজন মাদক ব্যবসায়ী আটক নাইক্ষ্যংছড়িতে বিপুল পরিমাণ চোলাই মদ উদ্ধারঃ আটক ২ ধুনটে জলাতঙ্কে শিশুর মৃত্যু।

এবার প্রকৌশলী রাজ্জাকের বিরুদ্ধে আরো একটি মামলা দায়ের-

  • আপডেট টাইম: বৃহস্পতিবার, ২ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ৩৮৮ বার পঠিত

 

গাইবান্ধা সংবাদদাতাঃ
প্রকৌশলীর নাম আব্দুর রাজ্জাক। তিনি রংপুর সদর উপজেলার মহাদেবপুর গ্রামের হোসেন আলীর ছেলে। উপসহকারী প্রকৌশলী পদে কর্মরত বাংলাদেশ রেলওয়ের গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার বামনডাঙ্গা রেলওয়ে স্টেশনে এস.এস.এ.ই কার্যালয়ে। উপসহকারী প্রকৌশলী আব্দুর রাজ্জাক ঘুষ দাবি করে না পেয়ে নিয়ম বহির্ভূতভাবে কোন প্রকার নোটিশ ছাড়াই দুইটি দোকান ঘর ভেঙ্গে ও মালামাল নষ্ট করে ১০ লক্ষ টাকার ক্ষতি করেছেন বলে তার বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেছেন স্থানীয় নাদিম হোসেন। নাদিম মনমথ (বামনডাঙ্গা) গ্রামের মৃত মনোয়ার হোসেনের ছেলে।
মামলা সূত্রে জানা যায়, নাদিম রেলওয়ে কতর্ৃপক্ষকে বানিজ্যিক লাইসেন্স বাবদ অর্থ পরিশোধ পূর্বক রেলওয়ের জায়গা গ্রহন করেন। এরপর আধাপাকা দুইটি ঘর নির্মাণ করে দীর্ঘদিন যাবত কাপড় ও কনফেকশনারীর ব্যবসা করে আসছিলেন। এব্যবসা ছিল তার জীবিকা নির্বাহের একমাত্র পথ। এমতাবস্থায় প্রকৌশলী রাজ্জাক বামনডাঙ্গা রেলস্টেশনের উন্নয়ন কাজের জন্য নাদিমের দোকান ঘরগুলো ভেঙ্গে ফেলার হুমকি দিয়ে আসছিলেন। সরকারী কর্মচারী হওয়া সত্বেও দোকান ঘর দুইটি ঠিক রাখার স্বার্থে প্রকৌশলী রাজ্জাক ৫ লক্ষ টাকা ঘুষ দাবি করেন নাদিমের কাছে। এসময় নাদিম ও তার লোকজন ঘুষ দাবির প্রতিবাদ করলে রাজ্জাক ও তার লোকজন প্রাণ নাশের হুমকি দিয়ে গত ৫ জুন/২১ ইং হাতুরী ও সাবল দিয়ে দোকান ঘর দুইটি গুড়িয়ে দিয়ে মালামাল নষ্ট করেন। এতে ১০ লক্ষ টাকা ক্ষতি হয়েছে বলে মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে। দোকান ঘর ভাঙ্গার বিষয়ে রেলওয়ের নিয়ম অনুসরন করা হয়নি। কোন নোটিশ দেয়া হয়নি। ভাংচুর ও উচ্ছেদকালে রেলওয়ের এষ্টেট কর্মকর্তা ম্যাজিস্ট্রেট ও প্রশাসনিক কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলনা। এছাড়া প্রকৌশলী রাজ্জাক ক্ষতিপূরন প্রদানের আশ্বাস দিয়ে তালবাহানা করায় অবশেষে বিজ্ঞ আমলী আদালত সুন্দরগঞ্জ, গাইবান্ধায় ২৯ আগষ্ট/২১ ইং সি.আর.নং-৩১৭/২১ মামলা দায়ের করেন নাদিম। রাজ্জাকের বিরুদ্ধে এটা দ্বিতীয় মামলা। প্রকৌশলী রাজ্জাক ছাড়াও এ মামলায় রেলওয়ের ট্রলিম্যান সাখাওয়াত, চৌকিদার সাইফুল, অস্থায়ী খালাশী জুয়েল রানা ও আব্দুল আউয়ালকে আসামি করা হয়েছে।
এর আগে বামনডাঙ্গা রেলওয়ে স্টেশনের প্লাটফর্ম সংস্কার কাজের শুরুতে স্টেশনের শোভাবর্ধনকারী শতবর্ষী কয়েকটি গাছ কর্তন করে টাকা আত্নসাত করার অভিযোগ এনে প্রকৌশলী রাজ্জাকের বিরুদ্ধে ১৬ জুন/২১ বিজ্ঞ আমলী আদালত সুন্দরগঞ্জ, গাইবান্ধা মামলা (সি.আর নং-২৩১/২১) দায়ের করেছেন বামনডাঙ্গার স্থায়ী বাসিন্দা জয়নাল আবেদিন। যা চলমান রয়েছে।
এ বিষয়ে উপসহকারী প্রকৌশলী আব্দুর রাজ্জাকের সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি দ্বিতীয় মামলাটির নোটিশ পাওয়ার কথা স্বীকার করে জানান, রেলস্টেশনের উন্নয়ন কাজ বাধাগ্রস্ত করতেই মামলা করা হয়েছে। মামলাগুলোর সত্যতা নেই। রাস্তায় গাড়ী ঢোকার মত জায়গা নেই। যাত্রীদের চলাচল নির্বিঘ্ন করতেই রাস্তার উন্নয়ন করা হচ্ছে। নিয়ম মোতাবেক রেল স্টেশন ও প্লাটফর্মের উন্নয়ন হবে। তিনি আরো জানান, প্রথম মামলাটিরও তদন্ত হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..
© All rights reserved © 2020 lalsabujerdesh.com ।
Theme Customized By BreakingNews