1. admin@lalsabujerdesh.com : ডেস্ক :
  2. lalsabujerdeshbd@gmail.com : Sohel Ahamed : Sohel Ahamed
বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ০১:৩৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
বঙ্গবন্ধু পরম হিতৈষী মানব ছিলেন: ড.কলিমউল্লাহ ছাতকে লাফার্জহোলসিম এর ত্রান বিতরণঃ অন্যান্যদেরও এগিয়ে আসার আহবান জানালেন স্থানীয় এমপি ভৈরবে বিভিন্ন দল থেকে দুই হাজার লোকের আওয়ামীলীগে যোগদান বন্যার্তদের সহযোগিতার জন্য যশোর জেলা বিএনপির অর্থ সংগ্রহ কার্যক্রম শুরু বঙ্গবন্ধু সারাটি জীবন মনুষ্য সেবায় নিজেকে নিয়োজিত রেখেছেন: ড.কলিমউল্লাহ ভৈরবে এক হাজার পরিবারের মাঝে ত্রাণ বিতরণ ছাতক পিডিবির কর্মকতা ও কর্মচারীদের বিরুদ্ধে মিটার চুরি ও ঘুষ দুর্নীতির অভিযোগ দুর্গাপুরে প্রাথমিক শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তির টাকা তুলে দিয়ে ১০০ টাকা রেখে দিচ্ছেন বিকাশ দোকানি রংপুরে তরুণীকে ধর্ষণ, ১৫ বছর পর ৩ জনের যাবজ্জীবন ফেনীর সোনাগাজীতে মোশারফ হোসেন উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের পদত্যাগের দাবিতে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ।

দুর্গাপুরে মহিলা কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে মিথ্যা চাঁদাবাজি অভিযোগের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ২৫ জানুয়ারী, ২০২২
  • ৩২ বার

 

 

আল নোমান শান্ত
দুর্গাপুর(নেত্রকোনা)প্রতিনিধি:

নেত্রকোনার দুর্গাপুরে সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর মানসুরা বেগমের বিরুদ্ধে মিথ্যা চাঁদাবাজির অভিযোগের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন। সোমবার দুপুরে প্রেসক্লাব মিলনায়তনে এ সংবাদ সম্মেলন করা হয়।

এ সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, ১,২,ও ৩নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর মানসুরা বেগম। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন, পৌর প্যানেল মেয়র মশিউজ্জামান বাদল,যুবলীগ নেতা বাবুল মিয়া ও মহিলা কাউন্সিলরের স্বামী মোঃ নয়ন মিয়া।

লিখিত পাঠে মহিলা কাউন্সিলর মানসুরা বেগম বলেন, ২৮১/৬৮-৬৯নং ভিপি মোকদ্দমা ভুক্ত সম্পত্তি আমার নানা মৃত বছির মৃধা লিজ গ্রহনের পর ৭-৮ আট বছর ভোগ করেছেন। তিনি মারা যাওয়ার পর উনার বাড়ির বার্ষিক বেতনভুক্ত কর্মচারী একই গ্রামের মৃত আমছর আলীর পুত্র আহাম্মদ আলী ওই সম্পত্তির মিথ্যা ওয়ারিশান দাবী করে বশির মীধার আর কোনো সন্তানাদি বা ওয়ারিশান নাই এমন তথ্য গোপন করে ভূমি অফিস থেকে নিজ নামে লিজ গ্রহন করে নেন। পরবর্তীতে ওই জমি ভোগ দখলের পর আহমদ আলী গোপনে স্থানীয় ভূমি দস্যু মানিক মিয়া(৪৭) ও নাহার জুয়েলার্স এর সত্বাধীকারী মোঃ দুলাল পোদ্দার(৫৫) এর কাছে কৌশলে বিক্রি বা হস্তান্তর করার পায়তারা করিতেছে। ওরা প্লাট আকারে বিভিন্ন জনের কাছে প্রতি শতাংশ ১লক্ষ টাকা হারে বিক্রি করে দেন। এমন ওই জায়গায় মাটি ভরাট করতে থাকলে বিষয়টি স্থানীয় কাউন্সিলর ও জমির উত্তরাধীকার সূত্রে ওয়ারীশন প্রাপ্ত মানসুরা বেগম মাটি ভরাট করতে দেখলে তৎক্ষনাত উপজেলা সহকারী কমিশনার(ভূমি) মহোদয়কে মৌখিকভাবে অবহিত করা হয়।পরে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ঘটনাস্থলে গিয়ে ঘটনার সত্যতা দেখে মাটি ভরাট কার্যক্রম বন্ধ রাখতে নির্দেশ প্রদান করেন। ওই বিরোধের জের ধরেই ভূমিদস্যু মানিক মিয়া ও দুলাল পোদ্দার লিজ গ্রহিতা আহম্মদ আলীকে লেলিয়ে দিয়ে জেলার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক রাজস্ব বরাবরে একটি মিথ্যা চাঁদাবাজির অভিযোগ দাখিল করে। আমি একজন জনপ্রতিনিধি হিসেবে সামজিক ভাবে হেয় প্রতিপন্ন করার অপপ্রচার চালিয়ে আসছে ওই মহলটি আমি এর তীব্র নিন্দা জানাই।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..